ইতিহাস (হিস্ট্রি) সাবজেক্ট রিভিউ

ইতিহাস সাবজেক্টে ভর্তি হওয়ার আগে জেনে নেওয়া দরকার যে, ইতিহাস বিভাগে কোন কোন কোর্স পড়ানো হয়।বাংলাদেশে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস সাবজেক্টের কোর্স
ইতিহাস সাবজেক্ট রিভিউ

History subject review in Bangla

ইতিহাসচর্চার অন্তর্নিহিত  উদ্দেশ্য হল সত্যানুসন্ধান। তারই প্রেক্ষিতে বর্তমান বিশ্বে ছড়িয়ে থাকা মানুষের অতীত জীবনসাধনা ও সংস্কৃতিচর্চার সত্যানুসন্ধানের অনবরত প্রচেষ্টাই ইতিহাস বিষয়ের অন্যতম উদ্দেশ্য।তারই অংশ হিসেবে বাংলাদেশে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ইতিহাস চর্চা করানো হয়। নিচে ইতিহাস সাবজেক্টের একটি রিভিউ তুলে ধরা হলঃ

ইতিহাসের সংজ্ঞাঃ

History শব্দের অর্থ সত্য উদঘাটনের জন্য অনুসন্ধান।আবার বাংলায় ইতিহাসের সরল অর্থ অতীতে যেমনটি ঘটেছিল।ইতিহাসের জনক হিরোডোটাস এর মতে, যা ঘটে যায় তার বিবরণই হল ইতিহাস।মানবজাতির ক্রমবর্ধিত প্রগতি কিংবা অবনতির ধারাবাহিক চিত্র সঠিক ও সুবিন্যস্তভাবে বর্তমান প্রজন্মের কাছে তুলে ধরে ইতিহাস।ইতিহাসেই লুকিয়ে আছে মানবপ্রগতির আসল সুর এবং ইতিহাসই মানুষকে জগৎ সম্পর্কে সত্যিকারের ধারনা দিতে পারে।

ইতিহাস সাবজেক্টের কোর্সসমূহঃ

ইতিহাস সাবজেক্টে ভর্তি হওয়ার আগে জেনে নেওয়া দরকার যে, ইতিহাস বিভাগে কোন কোন কোর্স পড়ানো হয়।বাংলাদেশে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস সাবজেক্টের  কোর্সসমূহ প্রায়ই এক, তবে কিছুটা ভিন্নতাও বিদ্যমান। নিচে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস সাবজেক্টের কোর্স টাইটেলগুলো তুলে ধরা হলঃ  
  • Introduction to history and historiography
  • History of the Indian subcontinent
  • History of Bengal
  • Introduction to Sociology and Anthropology
  • Historical Geography
  • Ancient civilizations
  • History of Bangla language and literature
  • History of medieval Europe
  • Emergence of Bangladesh
  • History of political thought and forms of government
  • History of Europe
  • History of England
  • Islamic civilization
  • History of philosophy
  • History of USA
  • Principles of economics and economic thought
  • History of modern Russia and USSR
  • Far east and southeast Asia Modern times
  • Europe and America since 1945
  • West Asia in modern times
  • History of Africa in modern times
  • South Asia since 1947


ইতিহাস সাবজেক্ট বাংলাদেশে কোথায় পড়ানো হয়ঃ

বাংলাদেশে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে ইতিহাস সাবজেক্ট নিয়ে উচ্চশিক্ষা প্রদান করা হয়।নিচে ইতিহাস সাবজেক্ট পড়ানো হয় এমন সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকা তুলে ধরা হলঃ

সরকারী প্রতিষ্ঠানঃ

  • ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়
  • চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়
  • রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়
  • জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়
  • জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়
  • বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়
  • খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়
  • বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়
  • বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়
  • জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অধিভূক্ত কলেজ
  • বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়

বেসরকারি প্রতিষ্ঠানঃ

এখনো ইতিহাস সাবজেক্ট  বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে  চালু করা হয়নি। পরবর্তীতে চালু করা হলে তথ্য আপডেট করা হবে। 


ইতিহাস নিয়ে বাংলাদেশে চাকরি সুবিধাঃ 

সাধারণত সাবজেক্ট রিভিউ আর্টিকেলের সবার আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দু হল চাকরির সুবিধা। ইতিহাস সাবজেক্টে পড়ে টেকনিক্যাল ও নন টেকনিক্যাল দুই ধরণের চাকরির সুবিধা পাওয়া যায়। নিচে ইতিহাস সাবজেক্ট পড়ে টেকনিক্যাল চাকরি সমূহ তুলে ধরা হলঃ 

টেকনিক্যাল চাকরিঃ

  • ইতিহাস সাবজেক্ট পড়ে সরকারি - বেসরকারি স্কুল পর্যায়ে শিক্ষকতা পেশায় যুক্ত হওয়া যায়।যেমন-সহকারী শিক্ষক (সামাজিক বিজ্ঞান)
  • সরকারি কলেজ শিক্ষকতাঃপ্রভাষক(ইতিহাস)
  • বেসরকারি কলেজে শিক্ষকতা
  • সরকারি শিক্ষক-প্রশিক্ষণ কলেজে শিক্ষকতাঃ প্রভাষক(ইতিহাস)
  • বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে(বিকেএসপি) শিক্ষকতা-প্রভাষক(ইতিহাস)
  • ইতিহাস সাবজেক্ট পড়ে সরকারি-বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ে শিক্ষকতা চাকরির সুবিধা পাওয়া যায়।
  • ইতিহাস সাবজেক্ট পড়ে  জাদুঘরে -সহকারী কিউরেটর/ কিপার (৯ম গ্রেড) হিসেবে যোগদানের সুযোগ পাওয়া যায়।ইতিহাসের শিক্ষার্থীদের জন্য এই চাকরি খুব আকর্ষণীয়।
  • আরকাইভস ও গ্রন্থাগার অধিদপ্তর-সিনিয়র/ জুনিয়র টেকনিক্যাল অ্যাসিস্ট্যান্ট (আরকাইভস) হিসেবেও চাকরির সুবিধা বিদ্যমান ইতিহাসের শিক্ষার্থীদের। 
  • মেরিন একাডেমীতে- শিক্ষা কর্মকর্তা(মানবিক)
  • কনটেন্ট রাইটার
  • আর্কাইভিস্ট
  • ইত্যাদি

ইতিহাস সাবজেক্টের শিক্ষার্থীরা শুধু টেকনিক্যাল চাকরিতে আবদ্ধ থাকে না, তাদের জন্য  ননটেকনিক্যাল চাকরির দ্বার সবসময় খোলা। নিচে ইতিহাস সাবজেক্টের নন টেকনিক্যাল চাকরিসমূহ তুলে ধরা হলঃ

নন টেকনিক্যাল চাকরিঃ

  • PSC এর অধীনে নন টেকনিক্যাল বা জেনারেল ক্যাডারে এবং জেনারেল নন ক্যাডারে চাকরি (যা সাধারণত বিসিএস চাকরি নামে পরিচিত)
  • সরকারি নন টেকনিক্যাল বা জেনারেল  চাকরি (অর্থাৎ যে সব চাকরির যোগ্যতা যে কোন বিষয়ে স্নাতক)
  • রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক, বেসরকারী ব্যাংক ও সরকারি বা বেসরকারী আর্থিক প্রতিষ্টানে চাকরি
  • করপোরেট চাকরি
  • এনজিও চাকরি 
  • ইত্যাদি

বিদ্র. সব নন. টেকনিক্যাল চাকরির বেলায় যোগ্যতা হিসেবে শুধুই স্নাতক পাশ চাওয়া হয়।নন টেকনিক্যাল চাকরির ক্ষেত্রে কোন সাবজেক্টকে অগ্রাধিকারও দেওয়া হয়না। যেকোন সাবজেক্টে পড়ে নন টেকনিক্যাল চাকরি পাওয়া যায়।

ইতিহাস সাবজেক্ট নিয়ে উচ্চশিক্ষাঃ

ইতিহাস সাবজেক্ট রিভিউ শীর্ষক আর্টিকেলের একটি চুম্বক অংশ হল ইতিহাস সাবজেক্ট নিয়ে উচ্চশিক্ষা। ইতিহাস সাবজেক্ট নিয়ে পৃথিবীর  বিভিন্ন দেশের বিশ্ববিদ্যালয়ে মাস্টার্স, এমফিল ও পিএইচডি ডিগ্রী বিদ্যমান। নিচে কয়েকটি  বিভিন্ন দেশের বিশ্ববিদ্যালয়ের উদাহারণ লিংকসহ দেওয়া হলঃ-

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে ইতিহাস নিয়ে উচ্চশিক্ষা-লিংকে ক্লিক করুন

হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে ইতিহাস নিয়ে উচ্চশিক্ষা  -লিংকে ক্লিক করুন

স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে ইতিহাস নিয়ে উচ্চশিক্ষা-লিংকে ক্লিক করুন

ক্যামব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ে ইতিহাস নিয়ে উচ্চশিক্ষা-লিংকে ক্লিক করুন

কলাম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়-লিংকে ক্লিক করুন

প্রিন্সটন বিশ্ববিদ্যালয়-লিংকে ক্লিক করুন

বার্মিংহাম বিশ্ববিদ্যালয়-লিংকে ক্লিক করুন

এডিনবরা বিশ্ববিদ্যালয়-লিংকে ক্লিক করুন

ইয়েল বিশ্ববিদ্যালয়-লিংকে ক্লিক করুন

শিকাগো বিশ্ববিদ্যালয়-লিংকে ক্লিক করুন

টরন্টো বিশ্ববিদ্যালয়-লিংকে ক্লিক করুন

ব্রাউন বিশ্ববিদ্যালয়-লিংকে ক্লিক করুন

The London School of Economics and Political Science (LSE)লিংকে ক্লিক করুন





এছাড়া বাংলাদেশ ও ভারতের অনেক বিশ্ববিদ্যালয়েও ইতিহাস সাবজেক্ট নিয়ে মাস্টার্সএমফিল ও পিএইচডি করার সুযোগ রয়েছে।







2 comments

  1. Informative article
    1. অসংখ্য ধন্যবাদ💙
Please don't share any link.
© Bihongom . All rights reserved. Developed by Jago Desain